সালাউদ্দিন-মুজাহিদের আপিল শুনানি শুরু ২৮ এপ্রিল

যুদ্ধাপরাধে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত জামায়াত নেতা আলী আহসান মোহাম্মদ মুজাহিদ ও বিএনপি নেতা সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর আপিল শুনানির জন্য নতুন দিন রেখেছে আদালত।

এই দুই মামলা শুনানি শুরুর জন্য আপিল বিভাগ আগামী ২৮ এপ্রিল দিন রেখেছে বলে সহকারী অ্যাটর্নি জেনারেল বশির আহমেদ জানিয়েছেন।

প্রধান বিচারপতি এসকে সিনহার নেতৃত্বাধীন চার বিচারপতির বেঞ্চে বুধবার মামলা দুটি উঠলে সময়ের আবেদন করেন আসামিপক্ষের আইনজীবীরা। তাদের আবেদনে সাড়া দিয়ে নতুন দিন রাখে আদালত।

গত ৭ এপ্রিল মামলা দুটি আপিল বিভাগের কার্যতালিকায় থাকলেও শেষ পর্যন্ত আদালতে ওঠার আগেই দিনের শুনানি শেষ হয়ে যায়।

আদালতে দুই আসামির পক্ষে ছিলেন বিএনপি সমর্থক আইনজীবীদের নেতা খন্দকার মাহবুব হোসেন। তার সঙ্গে মুজাহিদের পক্ষে ছিলেন শিশির মনির। আর রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম ও সহকারী অ্যাটর্নি জেনারেল বশির।

পরে খন্দকার মাহবুব বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “আমরা সময় চেয়েছিলাম। আদালত ২৮ এপ্রিল শুনানির দিন ধার্য করেছে।”

সময় চাওয়ার পক্ষে যুক্তি তুলে ধরে তিনি বলেন, “সিটি নির্বাচন ও বার কাউন্সিলের নির্বাচন হচ্ছে। এছাড়া একই আইনজীবীরা দুই মামলায়ই রয়েছেন। তাই আমরা সময় চেয়েছি।”

একাত্তরে মুক্তিযুদ্ধ চলাকালে সাংবাদিক, শিক্ষকসহ বুদ্ধিজীবী হত্যা এবং সাম্প্রদায়িক হত্যা-নির্যাতনের দায়ে ২০১৩ সালের ১৭ জুলাই আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল জামায়াতে ইসলামীর সেক্রেটারি জেনারেল মুজাহিদকে মৃত্যুদণ্ড দেয়।

ওই রায়ের বিরুদ্ধে সে বছর ১১ অগাস্ট আপিল করেন মুজাহিদ। রাষ্ট্রপক্ষ আপিল না করলেও শুনানিতে অংশ নিয়ে দণ্ড বহাল রাখতে যুক্তিতর্ক উপস্থাপন করবে বলে জানিয়েছে।

চট্টগ্রামের রাউজানে কুণ্ডেশ্বরী ঔষধালয়ের মালিক নূতন চন্দ্র সিংহকে হত্যা, সুলতানপুর ও ঊনসত্তরপাড়ায় হিন্দু বসতিতে গণহত্যা এবং হাটহাজারীর এক আওয়ামী লীগ নেতা ও তার ছেলেকে অপহরণ করে খুনের দায়ে ২০১৩ সালের ১ অক্টোবর আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল-১ সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর ফাঁসির রায় দেয়।

সব অভিযোগ থেকে খালাস চেয়ে ওই রায়ের বিরুদ্ধে একই বছর২৯ অক্টোবর আপিল করেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য সালাউদ্দিন কাদের।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here