প্রেসিডেন্টের মাথায় আম ছুঁড়ে ফ্ল্যাট পেলেন এক নারী

ভেনেজুয়েলায় একজন নারী প্রেসিডেন্ট নিকোলাস মাদুরোর মাথায় আম ছুঁড়ে মারার পর প্রেসিডেন্ট তার জন্যে একটি ফ্ল্যাট বরাদ্দ করেছেন। আরুগুয়া রাজ্যে বাস চালিয়ে যাওয়ার সময় ওই নারী প্রেসিডেন্টের মাথায় এই ফল ছুঁড়ে মারেন। ওই আমের গায়ে একটি বার্তা লেখা ছিলো যাতে ওই নারী প্রেসিডেন্টের কাছ থেকে সাহায্য চেয়েছিলেন। মি. মাদুরো টেলিভিশনের একটি সরাসরি অনুষ্ঠানে ওই আমটি দর্শকদের দেখান যার গায়ে ওই নারীর ফোন নম্বর লেখা ছিলো।

প্রেসিডেন্ট জানান যে ওই নারী তার কাছে একটি ফ্ল্যাট চেয়ে অনুরোধ করেছিলেন এবং তিনি তাকে সাহায্য করতে যাচ্ছেন। ওই মহিলা আমের গায়ে লিখেছিলেন- আপনি যদি পারেন তাহলে আমাকে ফোন করুন। সাথে তার নাম ও ফোন নম্বরও দেওয়া ছিলো। ভেনেজুয়েলায় এই আম ছুড়ে মারার ভিডিওটি ইন্টারনেটে ছড়িয়ে পড়েছে। এতে দেখা যাচ্ছে, প্রেসিডেন্ট মাদুরো মাথা নুইয়ে ফেলছেন এবং আমটি তার বাম কানের একটু উপরে আঘাত করলো। তারপর তিনি খুব শান্তভাবে আমটি কুড়িয়ে নিলেন এবং লোকজনের সামনে ফলটি তুলে ধরেন।

প্রেসিডেন্ট জানান, তার থাকার জায়গা নিয়ে সমস্যা ছিলো। এবং ইতোমধ্যেই তিনি ওই মহিলার জন্যে একটি ফ্ল্যাট বরাদ্দ করেছেন। টেলিভিশনের অনুষ্ঠানে তিনি বলেন, আগামীকালের মধ্যে, পরশুর একদিন পরেও নয়, আপনাকে ওই ফ্ল্যাটটি দেওয়া হবে। ওই নারী জানান, তার কোনো খারাপ উদ্দেশ্য ছিলো না। তিনি শুধু তার একটি স্বপ্ন পূরণ করতে চেয়েছিলেন। প্রেসিডেন্ট মাদুরো একজন সাবেক বাস ড্রাইভার। সাধারণ লোকজনের সাথে যোগাযোগ রাখার জন্যে তিনি মাঝেমধ্যেই বাস চালান। তিনি জানান, আমটি পাকা এবং পরে তিনি কোনো এক সময়ে সেটা খাবেন।
সূত্র: বিবিসি বাংলা

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here