‘মওকা মওকা! কেয়া হুয়া মওকে কা?’

বিশ্বকাপ চলাকালে ভারতের একটি জনপ্রিয় বিজ্ঞাপন ছিল ‘মওকা মওকা’। টুর্নামেন্টে ভারতের কাছে পাকিস্তান হেরে যায়। এরপর বাংলাদেশের বিপক্ষে আম্পায়ারের বিতর্কিত কয়েকটি সিদ্ধান্তের কারণে জয় পায় ভারত।

স্বাভাবিকভাবেই ভারতের পরাজয় দেখার জন্য অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করছিলেন বাংলাদেশ ও পাকিস্তানের সমর্থকরা।

শেষ পর্যন্ত সেমিফাইনালে সেই সুযোগ আসে দুদেশের সমর্থকদের কাছে। সেমিতে অস্ট্রেলিয়ার কাছে ভারত ৯৫ রানে হেরে যায়।

ভারতের হারে তাদের ক্রিকেট বোর্ডে ছিল নীরবতা। কিন্তু সেই শান্ত বিসিসিআইকে অশান্ত করে ফেলে বাংলাদেশ ও পাকিস্তানের সমর্থকরা। শুক্রবার তারা ক্রমাগত ভারতীয় বোর্ড অফিসে ফোন করতে থাকেন। এর পরিমাণ ছিল আগের যেকোনো সময়ের চেয়ে ২০০ গুণ বেশি।

ফোনের রিসিভার তুলতেই শুধু শোনা যায়, ‘মওকা মওকা! কেয়া হুয়া মওকে কা?’ (সুযোগ কি মিলেছে?)।

বিসিসিআই অফিসে ফোন আসা শুরু করে বৃহস্পতিবার বিকেল ৪টার পর থেকে- অস্ট্রেলিয়ার কাছে ভারতের হার নিশ্চিত হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে।

একটা সময় টেলিফোনের লাইন অফ করে দিতে বাধ্য হয় বোর্ড এবং মোবাইল কোম্পানিগুলোকে বলা হয় কলগুলো কোথা থেকে আসছে তা জানাতে। মোবাইল অপারেটররা বোর্ডকে জানায় যে অধিকাংশ কল ছিল বাংলাদেশ থেকে। আর বাকিগুলোর উৎস ছিল পাকিস্তান।

বিসিসিআইয়ের এক কর্মকর্তা বলেন, ‘ভারতের হারে অনেকেই উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছে। এটা ছিল একটা কৌতুক কিন্তু এক বিন্দু সময় পরেই এটা সত্যিই জ্বালাময় হয়ে ফিরে এল। একটা মজাদার জিনিস (মওকা মওকা বিজ্ঞাপন) যে এভাবে ফিরে আসবে চিন্তাই করি নাই।’

ভারতের খারাপ পারফরমেন্সের পর এবারই প্রথম দেশের বাইরে থেকে কোনো কল এসেছে বলেও জানান বিসিসিআইর ওই কর্মকর্তা।

সূত্র: ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here