‘অস্ট্রেলিয়াকে হারাও বিশ্বকাপ তোমার’

অস্ট্রেলিয়াকে হারালে পাকিস্তানের বিশ্বকাপ জয় কেউ ঠেকাতে পারবে না বলে মনে করেন ইমরান খান। গ্রুপ পর্বের শেষ ম্যাচে আয়ারল্যান্ডকে হারিয়ে কোয়ার্টার ফাইনালে উঠলে সেখানে তাদের সম্ভাব্য প্রতিপক্ষ অস্ট্রেলিয়া। শেষ আটের ম্যাচটি হবে ২০শে মার্চ অ্যাডিলেডে। আর ওই ম্যাচে অস্ট্রেলিয়াকে হারালে পাকিস্তানের বিশ্বকাপ শিরোপা জয় অনেকটা নিশ্চিত বলে মনে করেন সাবেক অধিনায়ক ইমরান খান। ম্যাচটি অ্যাডিলেডে বলেই পাকিস্তান অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে এগিয়ে থাকবে বলে বিশ্বাস ১৯৯২ বিশ্বকাপ শিরোপাজয়ী অধিনায়কের। বলেন, ‘অস্ট্রেলিয়ার কোন মাঠে যদি স্পিনাররা সাহায্য পায় তাহলে সেটা ‘অ্যাডিলেড’। এই মাঠের পিচ খুবই স্লো। স্পিন আক্রমণ দিয়ে এখানে অস্ট্রেলিয়াকে হারানো পাকিস্তানের জন্য সহজ হবে। আর এটা করতে পারলে পাকিস্তানের শিরোপা জয় কেউ ঠেকাতে পারবে না।’ ইমরান খান বলেন, ‘পাকিস্তান গ্রুপ পর্বের শেষ ম্যাচ খেলবে অ্যাডিলেডে। সেখানে লেগ স্পিনার ইয়াসির শাহকে খেলানো যেতে পারে। ভারতের বিপক্ষে সে খেলে কোন উইকেট না পেলও দারুণ বল করছিল। আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে তাকে খেলালে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে মাঠে নামার আগে নিজেকে ঝালিয়ে নিতে পারবে।’ ইয়াসির শাহ পাকিস্তানের হয়ে ২ ওয়ানডেতে ১১১ রানে নিয়েছেন ২ উইকেট। ইমরান খান বলেন, ‘অস্ট্রেলিয়া পেস বল মোকাবিলায় সিদ্ধহস্ত। সুতরাং তাদেরকে স্পিন দিয়ে ধরাশায়ী করাই উচিত। আর এক্ষেত্রে ইয়াসির শাহ-ই হতে পারে প্রধান অস্ত্র। প্রথম অধিনায়ক হিসেবে আমি একজন লেগ স্পিনার আবদুল কাদিরকে বিশ্বকাপে খেলাই (১৯৮৭)। সে ভাল করেছিল।’ এছাড়া পাকিস্তানের সাতফুটে পেসার মোহাম্মদ ইরফানকে বিশ্বকাপের সবচেয়ে ‘ভয়ঙ্কর’ বোলার উল্লেখ করে বলেন, ‘ইরফানকে উইকেট নেয়ার জন্য খেলাও, রান বাঁচানোর জন্য নয়। ওয়াসিম আকরাম ওয়াইড ও নো বল করে অনেক অতিরিক্ত রান দিত। কিন্তু এটা নিয়ে আমার কোন প্রশ্ন ছিল না। সে এভাবেই উইকেট পেতো। ইরফানের কাছেও এমন প্রত্যাশা করা যেতে পারে। সে চলতি বিশ্বকাপে সবচেয়ে ভয়ঙ্কর পেসার।’
পাকিস্তানের উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যান সরফরাজ আহমেদ প্রসঙ্গে ইমরান খান বলেন, ‘তার সাহসী ব্যাটিং স্ট্রাইল দারুণ। স্পেশালিস্ট একজন উইকেটরক্ষক। তাকে আরও আগেই খেলানো উচিত ছিল।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here