Home > দেশজুড়ে > ঢাকার বাইরে > ইসির নির্দেশ অমান্য, ওসিকে বদলীর নির্দেশ

ইসির নির্দেশ অমান্য, ওসিকে বদলীর নির্দেশ

স্থানীয় একজন ওয়ার্ড কাউন্সিলর প্রার্থীর পক্ষাবলম্বন করায় চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের খুলশি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মঈনুল ইসলামকে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে বদলী করার নির্দেশ দিয়েছেন নির্বাচন কমিশন (ইসি)।

ইসির নির্দেশ অমান্য করা এবং স্থানীয় একজন ওয়ার্ড কাউন্সিলর প্রার্থীর পক্ষ নিয়ে কাজ করার অভিযোগে সিএমপি কমিশনার আবদুল জলিল মন্ডলকে এক চিঠির মাধ্যমে খুলসি থানার ওসিকে সরিয়ে নেওয়ার নির্দেশ প্রদান করেন চট্টগ্রামের রিটার্নিং অফিসার আবদুল বাতেন।

বুধবার রাতে রিটার্নিং অফিসার এই নির্দেশনা দিয়ে পুলিশ কমিশনারকে দাপ্তরিক আদেশ প্রদান করেন।

খুলশি থানার ওসিকে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে সরিয়ে দেওয়ার নির্দেশ দিয়ে চিঠি দেওয়ার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন চট্টগ্রামের রিটার্নিং অফিসার আবদুল বাতেন।

চিঠিতে মঈনুল ইসলামকে খুলশি থানা থেকে সরিয়ে দেওয়ার পাশাপাশি তাকে চট্টগাম সিটি করপোরেশন নির্বাচন সংক্রান্ত অন্য কোনো দায়িত্ব না দেওয়ারও নির্দেশ দেওয়া হয়। একই সঙ্গে নির্বাচনকালীন সময়ে খুলশি থানায় একজন দক্ষ নিরপেক্ষ ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে দায়িত্ব দেওয়ার নির্দেশনাও দেওয়া হয়।

উল্লেখ্য, চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন নির্বাচনের প্রচার প্রচারণায় নগরীর সর্বত্র শান্তিপূর্ণ অবস্থা বিরাজ করলেও গত কয়েকদিনে খুলশি থানায় একাধিক অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেছে। এ সব ঘটনায় খুলশি থানার ওসি মঈনুল ইসলাম একজন কাউন্সিলর প্রার্থীর পক্ষ হয়ে কাজ করছেন বলে অভিযোগ রয়েছে।

গত ১১ এপ্রিল জামায়াত সমর্থিত বর্তমান কাউন্সিলর মাহফুজুল ইসলামের স্ত্রী ও সমর্থকরা নির্বাচনী প্রচারণা চালাতে গেলে তাদের ওপর হামলা চালানো হয়।

এরপর গত ১৬ এপ্রিল একই কাউন্সিরল প্রার্থীর নির্বাচনী প্রচারণায় হামলা চালানো হলে আহত হন প্রার্থী মাহফুজুলের স্ত্রীসহ বেশ কয়েকজন সমর্থক।

এ সব হামলায় আওয়ামী লীগ সমর্থিত কাউন্সিলর প্রার্থী মোহাম্মদ হোসেন হিরণের সমর্থকরা জড়িত বলে রিটার্নিং অফিসারের কাছে দেওয়া চিঠিতে অভিযোগ করেন মাহফুজুলের সমর্থকরা।

এই অভিযোগ আমলে নিয়ে রিটার্নিং অফিসারের কার্যালয় থেকে খুলশী থানা ওসির কাছে টেলিফোনে এ ব্যাপারে গৃহীত ব্যবস্থা সম্পর্কে জানতে চাওয়া হয়। তিনদিনের মধ্যে হামলাকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিয়ে রিটার্নিং অফিসারের কাছে প্রতিবেদন দাখিলেরও নির্দেশ দেওয়া হয়।

কিন্তু ওসি হামলাকারীদের বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা না নিয়ে উল্টো অভিযোগকারী মাহফুজুল হকের বাসায় অস্ত্রের সন্ধানে তল্লাশি অভিযান পরিচালনা করেন। এ ছাড়া নির্বাচন কমিশনের নির্দেশ মতে তিনদিনের মধ্যে কোনো অগ্রগতি প্রতিবেদনও দাখিল করেননি।

এই অবস্থায় সার্বিক দিক বিবেচনায় চট্টগ্রামের রিটার্নিং অফিসার আবদুল বাতেন বুধবার রাতে পুলিশ কমিশনারের কাছে প্রেরিত জরুরি দপ্তরাদেশে খুলশি থানার ওসিকে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে সরিয়ে দেওয়ার নির্দেশ প্রদান করেন।