তৃতীয় অসুখী দেশ বাংলাদেশ

1_70114সুখী দেশের তালিকার প্রথম সাড়িতে থাকা বাংলাদেশ এখন অসুখী দেশের তালিকায় তৃতীয় অবস্থানে। যুদ্ধবিধ্বস্ত দেশ আফগানিস্তান ও বোমাতঙ্কের দেশ পাকিস্তানের মানুষও বাংলাদেশের মানুষের চেয়ে বেশি সুখী! আন্তর্জাতিক জরিপকারী সংস্থা গ্যালাপ এ তথ্য প্রকাশ করেছে।

জাতিসংঘের তৃতীয় ‘আন্তর্জাতিক সুখ দিবস’ উপলক্ষ্যে ২০ মার্চ জরিপের ফলাফল প্রকাশ করে প্রতিষ্ঠানটি। সুখের মাত্রা উপলব্ধির জন্য গবেষকরা প্রতিটি দেশের ১ হাজার মানুষের সাক্ষাৎকার নিয়েছেন।

এবারই গত এক দশকে প্রথমবারের মতো বিশ্বের শীর্ষ ১০টি সুখী দেশের তালিকার সবগুলোই দখলে নিয়েছে লাতিন আমেরিকার দেশগুলো!

এমনিতেই বিশ্ব মিডিয়ায় একের পর এক ভিন্ন ধারার নেতিবাচক খবরের শিরোনাম হচ্ছে বাংলাদেশ। চলমান রাজনৈতিক সংকট এসব খবরের শিরোনামে সহযোগিতা করছে বলে বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন।

গ্যালাপের ইতিবাচক অভিজ্ঞতা সূচক মোতাবেক বিশ্বের সবচেয়ে সুখী দেশের তালিকায় বাংলাদেশের অবস্থান নীচের দিকে। বিশ্বের ১৪৩টি দেশের মানুষের উপর জরিপ চালিয়েছিল গ্যালাপ। বাংলাদেশ শেষের দিক থেকে তৃতীয় স্থানে রয়েছে!

এমন জরিপগুলোর শীর্ষেই থাকতো বাংলাদেশ। বাংলাদেশ সুখী জাতির তালিকায় অনেকবার স্থান পেলেও এখন একেবারে অসুখী দেশের তালিকায় ঠাঁই নিয়েছে!

সুখী দেশের তালিকার শীর্ষে রয়েছে লাতিন আমেরিকার দেশ প্যারাগুয়ে। গ্যালাপের মতে, প্যারাগুয়ের মানুষ প্রতিদিন সবচেয়ে বেশি ইতিবাচক আবেগের প্রকাশ ঘটান বলে জানিয়েছেন।

সুখী শীর্ষ দশটি দেশগুলো হলো, প্যারাগুয়ে, কলম্বিয়া, একুয়েডর, গুয়াতেমালা, হন্ডুরাস, পানামা, ভেনেজুয়েলা, কোস্টারিকা, এল সালভাদর, নিকারাগুয়া।

গ্যালাপের জরিপ মোতাবেক বিশ্বের সবচেয়ে অসুখী দেশটি হচ্ছে সুদান।

বিশ্বের শীর্ষ ১০টি অসুখী দেশ হলো, সুদান, তিউনেশিয়া, বাংলাদেশ, সার্বিয়া, তুরষ্ক, বসনিয়া ও হার্জেগোভিনিয়া, জর্জিয়া, লিথুনিয়া, নেপাল ও আফগানিস্তান।

গ্যালাপ জানিয়েছে, মধ্যপ্রাচ্য ও উত্তর আফ্রিকার দেশগুলোই এ সূচকে নীচের দিকে স্থান পেয়েছে।

 

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here