ধর্মীয় শিক্ষায় নৈতিক মূল্যবোধ জাগ্রত হয়: শিক্ষামন্ত্রী

ধর্মীয় শিক্ষাকে নৈতিক শিক্ষার মূল ভিত্তি বলে মন্তব্য করেছেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ। তিনি বলেন, মানুষের নৈতিক মূল্যবোধ জাগ্রত হয় ধর্মীয় শিক্ষার মধ্য দিয়ে। ধর্মীয় মূল্যবোধই নৈতিক শিক্ষার মূল ভিত্তি। শিক্ষকদের মধ্যে ইসলামিক মনোভাব থাকতে হবে। শিক্ষার্থীরা যেন ধর্মীয় মূল্যবোধকে মাথায় রেখে নৈতিক শিক্ষা লাভ করে সেজন্য শিক্ষকদের ট্রেনিংয়ের ব্যবস্থাও করা হয়েছে। আজ রবিবার সকালে নব প্রতিষ্ঠিত ইসলামি আরবি বিশ্ববিদ্যালয় পরিদর্শনের পর এক আলোচনায় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন শিক্ষামন্ত্রী। ইসলামি আরবি বিশ্ববিদ্যালয়ের উদ্যোগে বিশ্ববিদ্যালয়ের অস্থায়ী কার‌্যালয়ে এ আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়।

তিনি বলেন, শত বছর পর আলেম-ওলামাদের ইসলামিক বিশ্ববিদ্যালয়ের স্বপ্ন পূরণ হয়েছে। একটি বিশ্ববিদ্যালয় করতে হলে অনেক প্রক্রিয়ার মধ্য দিয়ে এর কার‌্যক্রম শুরু করতে হয়। ইসলামী আরবি বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠিত করার জন্য সব ধরনের পদক্ষেপ আমরা গ্রহণ করেছি। অচিরেই পুরিপূর্ণভাবে এর কার‌্যক্রম শুরু হবে। মন্ত্রী বলেন, ইসলামি শিক্ষার পাশাপাশি আধুনিক শিক্ষা অর্জন করতে হবে। তা না হলে মাদ্রাসার শিক্ষার্থীরা পিছিয়ে যাবে।

তিনি আরো বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীরা শুধু আসবে যাবে তা হবে না। বিশ্ববিদ্যালয় হবে জ্ঞান চর্চার গবেষণাগার। তবেই সেটা হবে বিশ্ববিদ্যালয়ের সার্থকতা। আর এজন্যই ইসলামী আরবি বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য জমি দেখা হচ্ছে। যেন সেখানে বড় ভবন নির্মাণ করা যেতে পারে। গবেষণাগার থেকে শুরু করে শিক্ষার্থীদের জন্য এখানে থাকবে সব ধরনের সুযোগ সুবিধা। এ সময় শিক্ষার উন্নয়ন এবং মান সম্মত শিক্ষা দেওয়ার জন্য সরকারের বিভিন্ন পদক্ষেপের বিষয় উল্লেখ করে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ধর্মীয় মূল্যবোধই নৈতিক শিক্ষার মূল ভিত্তি। তাই সরকার সাধারণ শিক্ষার পাশাপাশি মাদ্রাসা শিক্ষায় গুরুত্ব দিয়েছে।